পণ্যের মূল্যে ছাড়!

এই যে চাঁদটা।
এর এক সপ্তাহ আগেই মানুষ জেনে যায় চাঁদ আসছে।
কীভাবে?
বাজারে ঢুকে।
সব কিছুর দাম ৫-২০ টাকা বেড়ে গেছে। 
অথচ এ চাঁদ কষ্টের না, খুশির খবর হয়ে আসার কথা ছিল।

আল্লাহ সুবহানাহু ওয়া তা’আলা বলেন,

রমাদান মাসই হল সে মাস, যাতে নাযিল করা হয়েছে কুরআন, যা মানুষের জন্য হেদায়েত এবং সত্যপথ যাত্রীদের জন্য সুষ্পষ্ট পথ নির্দেশ আর ন্যায় ও অন্যায়ের মাঝে পার্থক্যকারী।
কাজেই তোমাদের মধ্যে যে লোক এ মাসটি পাবে, সে সিয়াম থাকবে।
আর যে লোক অসুস্থ কিংবা মুসাফির অবস্থায় থাকবে সে অন্য দিনে গণনা পূরণ করবে। আল্লাহ তোমাদের জন্য সহজ করতে চান; তোমাদের জন্য জটিলতা কামনা করেন না।
[সূরা বাকারা, ২:১৮৫]

রমাদান মাসে আল্লাহ মানুষের জন্য সহজতা চেয়েছেন।
আমরাও তাই চাচ্ছি।
আমরা আমাদের লাভের একটা অংশ মানুষের সহজতার জন্য ছেড়ে দিচ্ছি ইন শা আল্লাহ।
এই রমাদানে সরোবর থেকে বিক্রিত সব পণ্যের ওপর ৫% ছাড় থাকবে ইন শা আল্লাহ।

আশা থাকবে একদিন এই দেশে এই চাঁদ দেখার এক সপ্তাহ আগদিয়ে সব কিছুর দাম কমে যাবে।
ইন শা আল্লাহ।
একদিন এমন দিন আসবে।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *